দেশ

ঈদে মোটরসাইকেলে বাড়ি ফেরা, পথে দুর্ঘটনায় ২ ভাই নিহত

13views


সাতক্ষীরা মেডিক্যাল কলেজ (সামেক) হাসপাতালে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনার উপসর্গে ১০ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে জেলায় করোনার উপসর্গ নিয়ে মোট ৪৮৫ জন মারা গেছেন। আর করোনায় মারা গেছেন ৮২ জন।

করোনার উপসর্গ নিয়ে মৃতরা হলেন- সাতক্ষীরা সদর উপজেলার ছনকা গ্রামের আতিয়ার রহমানের স্ত্রী রেহেনা খাতুন (৫০), একই উপজেলার শিমুলবাড়িয়া গ্রামের হরিপদ মন্ডল (৮০), বালিয়াডাঙ্গা গ্রামের শহিদুল ইসলামের স্ত্রী শরবানু (৪৫), নুনগোলা গ্রামের খলিলুর রহমান (৭৫), দেবহাটা উপজেলার বহেরা গ্রামের শামছুর রহমানের স্ত্রী শামছুন্নাহার (৫৫), কালিগঞ্জ উপজেলার চরযমুনা গ্রামের আব্দুল গাজী (৭৫), তালা উপজেলা সদর গ্রামের রহিম শেখের স্ত্রী মোমেনা খাতুন (৪৫), কলারোয়া উপজেলার সোনাবাড়িয়া গ্রামের ইউসুপ আলীর ছেলে মাসুদ রানা (২৭), যশোরের কেশবপুর উপজেলার চিংরা গ্রামের আলীম গাজী (৫২) ও আশাশুনি উপজেলা সদর গ্রামের বেনজিরা খাতুন (৬০)।

জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ সূত্র জানায়, জ্বর, সর্দি, কাশি ও শ্বাসকষ্টসহ করোনার নানা উপসর্গ নিয়ে গত ২৫ জুন থেকে ১৯ জুলাইয়ের মধ্যে সাতক্ষীরা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের করোনা ইউনিটে ভর্তি হন তারা। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তাদের মৃত্যু হয়। 

এদিকে সাতক্ষীরায় ফের বেড়েছে করোনা সংক্রমণের হার। গত ২৪ ঘণ্টায় সামেক হাসপাতালের পিসিআর ল্যাব ও উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ৩২৪টি নমুনা পরীক্ষায় ৯২ জনের করোনা শনাক্ত হয়। শনাক্তের হার ২৮ দশমিক ৩৯ শতাংশ। আগের দিন শনাক্তের হার ছিল ২২ দশমিক ৫৯ শতাংশ।

সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালের মেডিক্যাল কর্মকর্তা ও জেলা করোনা বিষয়ক তথ্য কর্মকর্তা ডা. জয়ন্ত কুমার সরকার বলেন, এ পর্যন্ত সাতক্ষীরায় করোনা রোগীর সংখ্যা পাঁচ হাজার ১০৫। জেলায় তিন হাজার ৭৫০ জন সুস্থ হয়েছেন। বর্তমানে করোনা রোগী রয়েছেন এক হাজার ২৭৩ জন। হাসপাতালে ভর্তি করোনা রোগীর সংখ্যা ৩২ জন। তাদের মধ্যে সামেক হাসপাতালে ২২ জন ও বেসরকারি হাসপাতালে ১০ জন ভর্তি আছেন। হোম আইসোলেশনে আছেন এক হাজার ২৪১ জন। উপসর্গ নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি আছেন ২৫৯ জন। এর মধ্যে সরকারি হাসপাতালে ভর্তি ১৯৫ জন ও বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি ৬৪ জন। 

তিনি আরও বলেন, সরকারি-বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি রোগীর সংখ্যা ২৭৬ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় ৭২ জন সুস্থ হয়েছেন। করোনায় এ পর্যন্ত মারা গেছেন ৮২ জন। উপসর্গ নিয়ে মারা গেছেন ৪৮৫ জন।





Source link