খেলাধুলা

IPL: মুম্বইয়ে IPL-র আকাশে আচমকা মেঘ – covid 19 impacts on ipl 2021

35views


হাইলাইটস

  • করোনার গুগলিতে শুরুর চার দিন আগে হঠাৎ ব্যাকফুটে IPL।
  • করোনায় আক্রান্ত দিল্লি ক্যাপিট্যালসের স্পিনার-অলরাউন্ডার অক্ষর প্যাটেল।
  • এই মুহূর্তে দিল্লি টিম রয়েছে মুম্বইয়ে।

মুম্বই: করোনার গুগলিতে শুরুর চার দিন আগে হঠাৎ ব্যাকফুটে IPL। করোনায় আক্রান্ত দিল্লি ক্যাপিট্যালসের স্পিনার-অলরাউন্ডার অক্ষর প্যাটেল। এই মুহূর্তে দিল্লি টিম রয়েছে মুম্বইয়ে। শুধু অক্ষরই নন, ওয়াংখেড়ের দশ জন মাঠকর্মীর কোভিড রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে। জটিলতা আরও আছে। ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের যে কর্মীরা IPL-এ দৈনন্দিন কাজ করেন, তাঁদের সাত জনের করোনা ধরা পড়েছে। মুম্বইয়ে থাকা চেন্নাই সুপার কিংসের এক কর্মীরও করোনা ধরা পড়েছে।

সব মিলিয়ে করোনার কোপে মুম্বইয়ে IPL আয়োজনের উপর প্রশ্ন উঠে গিয়েছে। ১৪ তম IPL-র উদ্বোধনী ম্যাচ আগামী শুক্রবার চেন্নাইয়ে। পরের দিনই মুম্বইয়ে প্রথম ম্যাচ। যেখানে মুখোমুখি চেন্নাই সুপার কিংস ও দিল্লি ক্যাপিট্যালস। মুম্বইয়ের সাম্প্রতিক পরিস্থিতিতে IPL সুষ্ঠু ভাবে হবে কি না, তা নিয়ে জল্পনা শুরু হয়ে গিয়েছে। মহারাষ্ট্র সরকার ইতিমধ্যেই সম্পূর্ণ লকডাউনের ইঙ্গিত দিয়েছেন। এক বোর্ড কর্তা বলেছেন, ‘এখন অনেক দেরি হয়ে গিয়েছে। মুম্বই থেকে ম্যাচ সরানোটা এখন বেশ সমস্যার। এমনিতে মুম্বইয়ে সব টিম আলাদা আলাদা কঠোর জৈব সুরক্ষা বলয়ের মধ্যে রয়েছে।’

মুম্বইয়ের ব্যাক আপ কেন্দ্র হিসেবে বোর্ড আগে থেকেই ঠিক করে রেখেছিল হায়দরাবাদকে। কিন্তু এখনই মুম্বইয়ে IPL বন্ধ করতে হলে, বিকল্প কেন্দ্র হিসেবে হায়দরাবাদে ম্যাচ সরিয়ে নিয়ে যাওয়া কার্যত অসম্ভব বলেই মনে করছেন বোর্ডের অনেকে। ওই কর্তার কথায়, ‘ব্যাক আপ ভেন্যু হিসেবে হায়দরাবাদকে ধরা থাকলেও এক সপ্তাহের মধ্যে সব সরিয়ে নিয়ে যাওয়া খুবই কঠিন।’ যদিও পরিস্থিতি রীতিমতো খারাপের দিকে যাচ্ছে।

কলকাতা নাইট রাইডার্সের নীতীশ রানার পর অক্ষর দ্বিতীয় ক্রিকেটার, যিনি এ বারের IPL-এ করোনা আক্রান্ত হলেন। প্রসঙ্গত, দিল্লি ক্যাপিট্যাল প্র্যাক্টিস মুম্বইয়ের ব্র্যাবোর্ন স্টেডিয়ামে। ২৮ মার্চ মুম্বইয়ের হোটেলে টিমের যোগ দেন অক্ষর। তখন অবশ্য তাঁর করোনা রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছিল। দ্বিতীয়বার পরীক্ষায় রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে। স্বাভাবিক ভাবে এই মুহূর্তে অক্ষরকে আইসোলেশনে রাখা হয়েছে। দিল্লি ফ্র্যাঞ্চাইজির মেডিক্যাল টিমের তত্ত্বাবধানে আছেন আমেদাবাদের এই বাঁ হাতি স্পিনার। তবে পুরো দিল্লি টিমের কোয়ারান্টিনে যাওয়ার কোনও খবর নেই।

‘রোজই নিজেকে নতুন করে প্রমাণ করতে নামি’
গত বছর করোনার প্রকোপে ১৩ তম সংস্করণের IPL হয়েছিল আরব আমিরশাহিতে। কিন্তু এ বার দেশের মাঠে আয়োজনে মরিয়া বোর্ড। সে জন্য হোম-অ্যাওয়ে ফর্ম্যাটে হচ্ছে না টুর্নামেন্ট। মাঠে থাকছে না দর্শক থেকে সংবাদমাধ্যম। তারপরও মুম্বইয়ের করোনা পরিস্থিতি দেশের মাঠে IPL শুরুর আগে ভালো রকমের সংশয় তৈরি করে ফেলল।

Exclusive: নস্ট্যালজিয়ায় ডুব দিলেন সৈয়দ কিরমানি
টাটকা ভিডিয়ো খবর পেতে সাবস্ক্রাইব করুন এই সময় ডিজিটালের YouTube পেজে। সাবস্ক্রাইব করতে এখানে ক্লিক করুন।



Source link