আমাদের দেশটেকরিভিউ

OPPO WATCH রিভিউ

ছবি: gizguide.com
236views

Oppo ওয়াচটি ছিল প্রায় নিখুঁত একটি অ্যান্ড্রয়েড স্মার্টওয়াচ যেটি ছিল, স্মার্টওয়াচ তৈরির জন্য ওপ্পো সংস্থাটির প্রথম প্রচেষ্টা, এই স্মার্টওয়াচটি দুর্দান্ত অনেকগুলো ফিচার নিয়ে ২০২০ সনের মার্চ মাসে মার্কেটে আসে। এটির আউটলুক খুবই আকর্ষণীয় হাতে পরে থাকতে আপনাকে আরামদায়ক অনুভূতি দিবে, একটিতে চমৎকার একটি ডিসপ্লে রয়েছে যা বিভিন্ন ঘড়ির মুড কাস্টমাইজ করে করা যাবে এবং এর ফিচারে গুলো আপনাকে প্রদর্শণ করবে ফিটনেস কিরকম এবং আপনার ক্রিয়াকলাপ ট্র্যাকিং করতে পারবে। এটিতে আপনি পাবেন ৪৩০ আম্পিয়ারের ব্যাটারি এবং সিস্টেম-স্তরের অপ্টিমাইজেশনের জন্য Oppo ওয়াচটি একটি উপযুক্ত অ্যান্ড্রয়েড স্মার্টওয়াচ তবে এর দামের দিক থেকে বিবেচনা করলে, তুলনামূলক অন্যান্য স্মার্টওয়াচগুলি রয়েছে যেমন অ্যামেজফিট, স্যামস্যাং, টিকওয়াচ এবং এমনকি এমআই ওয়াচ রিভলভ এর থেকে বেশি। এটি বলার পরেও আমরা অবশ্যই ওপ্পো ওয়াচ এর প্রতি আগ্রহী কারণ সংস্থাটি তার স্মার্টওয়াচের পরবর্তী প্রজন্মের জন্য কী নিয়ে আসে তা দেখার জন্য অপেক্ষা করতে পারি ।

OPPO WATCH এর বিস্তারিত রিভিউ

Oppo ওয়াচ হল কোম্পানিটির সুস্থিত প্রথম স্মার্টওয়াচ যা তার সামঞ্জস্য ওজনের কারণে খুব জনপ্রিয়তা পেয়েছে। প্রথম নজরে দেখলে এটিকে আপনার অ্যাপলওয়াচের মতো মনে হবে। ওপ্পোর স্মার্টওয়াচটিতে মূলত গুগলের ওয়ারওএস ব্যবহার করা হয়েছে, ডিজাইনটি গঠনের ক্ষেত্রে এটি অ্যাপলওয়াচের মতো অনেকটা দেখতে। ওপ্পো ওয়াচটি আপনার হাতে ধারণ করলে একটি প্রিমিয়াম অনুভব পাবেন যা খুব কম অ্যান্ড্রয়েড স্মার্টওয়াচে পাবেন। আপনি যেমনটি আশা করেছিলেন তেমনই ওপ্পো ওয়াচের সাথে সমস্ত প্রয়োজনীয় ফিটনেস বৈশিষ্ট্য পাবেন, তবে এটি কি একটি চূড়ান্ত অ্যান্ড্রয়েড স্মার্টওয়াচ, চলুন এর ফিচারে গুলো দেখে আসি।

এক নজরে দেখে নেই OPPO WATCH এর মূল স্পেসিফিকেশনগুলি

নেটওয়ার্ক
নেটওয়ার্ক টাইপ: এইচএসপিএ / এলটিই নেটওয়ার্ক ২জি: না
নেটওয়ার্ক ৩জি: এইচএসডিপিএ ৮৫০/৯০০/২১০০
নেটওয়ার্ক ৪জি: এলটিই
স্পিড: এইচএসপিএ, এলটিই

বডি
আয়তন: ৪৬ x ৩৯ x ১১.৪ মিমি (১.৮১ x ১.৫৪ x ০.৪৫ ইঞ্চি) ওজন: ৪৫.৫ গ্রাম বিল্ড: গ্লাস ফ্রন্ট, স্টেইনলেস স্টিল ফ্রেম বা অ্যালুমিনিয়াম ফ্রেম, সিরামিক / সাপফায়ার ক্রিস্টাল ব্যাক বা প্লাস্টিক ব্যাক নেটওয়ার্ক: সিম eSIM

ডিসপ্লে
ডিসপ্লে টাইপ: AMOLED নমনীয় ক্যাপাসিটিভ টাচস্ক্রিন, ১৬এম রঙ ডিসপ্লে আকার ১.৯১ ইঞ্চি, ১১.৬ সেমি রেগুলেশন: ৪০২ x ৪৭৬ পিক্সেল ডিসপ্লে মাল্টিটাচ: হ্যাঁ ডিসপ্লে ডেন্সিটি: ৩২৬পিপিআই ডিসপ্লে স্ক্রিন প্রোটেকশন: কর্নিং গরিলা গ্লাস ৩

প্ল্যাটফর্ম
ওএস ভার্সন: কালারওএস ওয়াচ ওএস সিপিইউ: কোয়াড কোর ১.২ গিগাহার্টজ কর্টেক্স-এ ৭ জিপিইউ: অ্যাড্রেনো ৩০৪ চিপসেট: কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন ৩১০০ (২৮ এনএম)

মেমরি
মেমোরি ইন্টারনাল: ৮ জিবি
মেমরি এক্সটার্নাল: না
র‌্যাম: ১জিবি

ক্যামেরা
প্রাথমিক ক্যামেরা: না

সাউন্ড
অডিও: হ্যাঁ
লাউড স্পিকার: হ্যাঁ
৩.৫ মি.মি জ্যাক: না

ফিচারস
সেন্সর: একসেলেরোমিটার, গাইরো, হার্ট রেট, ব্যারোমিটার
জাভা: না

ব্যাটারি
ব্যাটারির ধরণ: অপসারণযোগ্য না, লি-আয়ন ব্যাটারি
ব্যাটারি ক্ষমতা: ৪৩০ আম্পিয়ার
চার্জিং: ওয়্যারলেস চার্জিং

ডিজিট রেটিং ৭০/১০০

ডিজাইন ৮০
ট্র্যাকিং নির্ভুলতা৮০
সফটওয়্যার ৭০
ব্যাটারি ৫০

সুবিধাঃ

প্রিমিয়াম এবং টেকসই বিল্ড
WearOS কোনও সমস্যা ছাড়াই চলে
ক্রিয়াকলাপ ট্র্যাকিং বৈশিষ্ট্যগুলির স্যুট, হার্ট রেট মনিটরিং এবং আরও অনেক কিছু

অসুবিধা:

গড় ব্যাটারির আয়ু
তৃতীয় পক্ষের কব্জি স্ট্র্যাপগুলির সাথে সামঞ্জস্যপূর্ণ নয়

Review overview

ডিজাইন8
ট্র্যাকিং নির্ভুলতা8
সফটওয়্যার7
ব্যাটারি5
7

Summary

ডিজিট রেটিং

Source :